এ বছর হজের খুতবা দেবেন শায়খ আবদুল আজিজ বালিলা

জিলহজ মাসের নবম দিন ইয়াওমে আরাফা বা আরাফার দিন। এই দিনটি মহান আল্লাহর কাছে সম্মানিত একটি দিন। হাজিরা এই দিন আরাফা প্রাঙ্গণের পর্বত ও এর আশপাশে অবস্থান করেন। সেখানকার মসজিদে নামিরা থেকে একজন ইমাম সমবেত মুসলিমদের উদ্দেশে খুতবা দেন।

খুতবা প্রদানের জন্য প্রতি বছর মসজিদুল হারাম বা মসজিদে নববীর কোনো একজন ইমামকে নির্বাচন করা হয়। এই বছর মসজিদুল হারামের ইমাম ও খতিব শায়খ ড. বান্দার বিন আবদুল আজিজ বালিলা আরাফার প্রাঙ্গণে খুতবা প্রদান করবেন।

আরাফার দিনের খুতবায় মুসলিমদের উদ্দেশে গুরুত্বপূর্ণ কথা বলা হয়। আরাফার দিন খুতবা দেওয়া সুন্নত। ওই দিন জোহর ও আসরের নামাজ পড়ার আগে খুতবা শুরু করা হয়। জোহরের সময় জোহর ও আসরের নামাজ একসঙ্গে আদায় করা হয়।


আরও পড়ুন>>


এরপর মাগরিব ও এশার নামাজ একসঙ্গে এশার সময় আদায় করা হয়। নামাজ আগে ও পরে আদায়ের বিধান শুধু এই দিনের জন্য প্রযোজ্য।

আরাফার দিন সূর্যাস্ত পর্যন্ত হাজিরা আরাফা প্রাঙ্গণে অবস্থান করেন। এরপর তাঁরা মুজদালিফার দিকে চলে যান। আরাফা প্রাঙ্গণে শুভ্র কাপড় পরা হাজিদের অপূর্ব দৃশ্য সবার নজর কাড়ে। রেডিও, টিভি, ইউটিউবসহ বিভিন্ন সামাজিক মাধ্যমে আরাফার খুতবা সরাসরি সম্প্রচার করা হয়।

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Leave a Reply

প্রতিবেদক

সর্বশেষ সংবাদ