পরিচ্ছন্ন নির্বাচনের প্রত্যাশায় কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী পৌরবাসী

আগামী কাল ১৬ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হচ্ছে কুড়িগ্রাম জেলার নাগেশ্বরী পৌর সভার নির্বাচন। এই নির্বাচনে অংশ নিয়েছেন পাচ জন মেয়র প্রার্থী সহ জন মহিলা ও পুরুষ কাউন্সিলর পদ প্রার্থী।

পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ডের ভোটারবৃন্দদের সংগে কথা বলে তাদের মিশ্র প্রতিক্রিয়া পাওয়া গেছে। নানা জল্পনা কল্পনায় মুখরিত প্রতিটি মোড়ের চায়ের দোকানগুলো। নির্বাচনে কি হবে? সুষ্ঠু নিরপেক্ষ নির্বাচন হবে তো?
কে হবেন আগামী পাচ বছরের জন্য পৌর সভার অভিভাবক? ইত্যাকার নানাবিধ প্রশ্নে মুখরিত হাট বাজার।

একজন আব্বাস আলী (৮৫) তার ভাষ্যমতে কি হবে ভোট দিয়ে? ভোটের পরিচ্ছন্নতা কি আছে? যাকে ভোট প্রদান করি তিনিই কি নির্বাচিত ঘোষিত হন? এ রকম হতাশা জর্জরিত ভোটার যেমন আছেন ঠিক বিপরীত মূখী আশাবাদী আঃ সাত্তার(৫৩) ভোটারও আছেন, যিনি মনে করেন যোগ্য পরিচ্ছন্ন ব্যক্তিকেই পৌর সভার ভোটারবৃন্দ ভোটের মাধ্যমে নির্বাচিত করবেন।

এবারের নির্বাচনে নাগেশ্বরী পৌরসভায় একটি নতুন ধারা পরিলক্ষিত হয়েছে ভোটারদের আকৃষ্ট ও নিজ প্রতীকে ভোট প্রদানে অনুপ্রাণিত করতে প্রায় সকল প্রার্থীই দলে দলে মহিলা কর্মি ব্যবহার করে প্রচারণা চালিয়েছেন। এ ব্যাপারে প্রার্থীগনের অভিমত মহিলা কর্মীগণ খুব সহজেই প্রতি বাড়ি বাড়ি গিয়ে তাদের কাংখিত প্রচারণা সুন্দরভাবে করতে পেরেছেন। এছাড়াও মহিলা ভোটার যে প্রার্থীর দিকে ঝুকবে তার নির্বাচিত হওয়ার সম্ভাবনা তত বেশী।


আরও পড়ুন>>


অভিজ্ঞ জনের মতামত, এবার নির্বাচনে উল্ল্যেখযোগ্য সংখ্যক নতুন ভোটার যুক্ত হয়েছে। তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ ফলাফলের উপর প্রভাব বিস্তার করবে। তারা যেদিকে ঝুকবে তার নির্বাচিত হওয়ার সম্ভাবনা বেশী।

সব জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটাতে অপেক্ষা আর মাত্র কয়েক ঘন্টার। তারপর নাগেশ্বরী পৌরবাসী পেতে যাচ্ছে আগামী পাচ বছরের জন্য অভিভাবক। যার হাত ধরে এগিয়ে যাবে পৌর সভার কাংখিত উন্নয়ন।

উল্ল্যেখ্য, এবারের নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ সমর্থিত মোঃ ফরহাদ হোসেন সওদাগর (ধলু) নৌকা প্রতীকে, বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল সমর্থিত মোঃ শহিদুল ইসলাম মাষ্টার, ধানের শীষ প্রতীকে, জাতীয় পার্টি সমর্থিত বর্তমান মেয়র আঃ রহমান মিয়া, লাঙ্গল প্রতীকে, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ সমর্থিত প্রার্থী মাওলানা রফিকুল ইসলাম, হাতপাখা প্রতীকে, আওয়ামীলীগ এর বিদ্রোহী প্রার্থী মোহাম্মদ হোসেন ফাকু, নারিকেল গাছ প্রতীকে।

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Leave a Reply

লেখক

সর্বশেষ সংবাদ

%d bloggers like this: