বলিউড অভিনেতা ঋষি কাপুর আর নেই

অনলাইন ডেস্ক।।

বলিউড তারকা ইরফান খানের মৃত্যুর ঠিক একদিনের মাথায় বিদায় নিলেন আরেক বরেণ্য তারকা ঋষি কাপুর। তার বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর।

বৃহস্পতিবার (৩০ এপ্রিল) সকালে তার ভাই রণধীর কাপুর এই মৃত্যু সংবাদ গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন।

ঋষিকাপুর দীর্ঘদিন ধরে ক্যানসারে ভুগছিলেন। তবে মাঝে মাঝে তিনি প্রবল শ্বাসকষ্টেও ভুগতেন। এজন্য তাকে প্রায়ই হাসপাতালে ভর্তি হতে হতো। বৃহস্পতিবার ঠিক একারণেই তাকে মুম্বাই হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। বার বার ফিরে আসলেও আজ তিনি চলে গেছেন চিরতরে।

তার পরিবারের পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে জানানো হয়, “আমাদের প্রিয় ঋষি কাপুর লিউকেমিয়ার সাথে দুই বছরের লড়াইয়ের পরে আজ সকাল আটটা ৪৫ মিনিটে হাসপাতালে মৃত্যু বরণ করেছেন। হাসপাতালের চিকিৎকরা এবং চিকিৎকর্মীরা বলেছিলেন যে তিনি শেষ পর্যন্ত তাদের বিনোদন দিয়েছেন।”

ঋষি কাপুর ২০১৮ সালে ক্যানসারে আক্রান্ত হন। চিকিৎসার জন্য তিনি সস্ত্রীক যুক্তরাষ্ট্রে চলে যান। দীর্ঘদিন চিকিৎসার পর গত বছরই দেশে ফেরেন তিনি। এর পরেও তাকে মাঝে মাঝেই হাসপাতালে যেতে হতো।

তার মৃত্যু গোটা ভারত জুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। দেশের প্রধান মন্ত্রী ও রাস্ট্রপতিসহ বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষ শোক জানিয়েছেন।

তার মৃত্যু অমিতাভ বচ্চন প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করতে এক টুইট বার্তায় বলেছেন “আমি বিধ্বস্ত”।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী টুইটারে  বলেন যে কাপুর ” একজন শক্তিধর প্রতিভা ছিলেন।” তিনি আরও বলেন, তনি তাকে আজীবন মনে রাখবেন। কারণ ঋষি কাপুর শুধু একজন কিংবদন্তি অভিনেতাই না, তিনি ছিলেন চলচ্চিত্র প্রেমিক ও দেশানুরাগী। তিনি তার পরিবার ও ভক্তদের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।

ঋষি কাপুর কয়েক প্রজন্ম ধরে বলিউডে আধিপত্য বিস্তারকারী ‘কাপুর পরিবারের’ সদস্য। ১৯৭০ সালে তিনি তার বাবা রাজ কাপুরের হাত ধরে শিশু শিল্পী হিসেবে “মেরা নাম জোকার” ছবির মাধ্যমে বলিউডে পদার্পণ করনে।

এর পরে ১৯৭৩ সালে রোমান্টিক ছবি “ববি”-তে মূল ভূমিকায় অভিনয় অভিনয় করে সেরা অভিনেতা হিসেবে ফিল্মফেয়ার অ্যাওয়ার্ড জিতেছিলেন।

এর পরে আর তাকে ফিরে তাকাতে হয়নি। ক্যারিয়ারের পুরো সময় জুড়ে রোমান্টিক নায়ক থেকে শুরু করে বিভিন্ন চরিত্রে শতাধিক ছবিতে অভিনয় করেছিলেন।

তার স্ত্রী অভিনেত্রী নিতু সিং। এ সময়ের অন্যতম জনপ্রিয় নায়ক রণবীর কাপুর তাদের সন্তান। এছাড়াও তিনি অভিনেত্রী কারিশমা কাপুর (খান) এবং কারিনা কাপুর-খানের চাচা।

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Leave a Reply

লেখক

সর্বশেষ সংবাদ

%d bloggers like this: