বোরোধানে পাতাব্লাস্টের আক্রমণে দিশেহারা কৃষক

অনলাইন ডেস্ক।।

বোরোধানে পাতাব্লাস্টের আক্রমণে দিশেহারা পড়েছে কৃষক। করোনাভাইরাসের সংক্রামণ রোধে কার্যত গৃহবন্দী কৃষকদের মধ্যে এ নিয়ে নতুন ধরণের আশংকা উকি দিচ্ছে। কারণ এখনই এই ছত্রাক দমন করতে না পারলে ধান পাকার আগেই চিটা হয়ে যাবে।

যশোরের ঝিকিরগাছা উপজেলার বিভিন্ন এলকায় এ ছত্রাকের আক্রমণের খবর পাওয়া গেছে। উপজেলা কৃষি অধিদপ্তর জানিয়েছে, তারা উদ্ভুত পরিস্থিতি মোকাবেলা করার জন্য সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। এজন্য আক্রান্ত এলাকাগুলিতে যাবতীয় ব্যবস্থা  গ্রহণ করার তৎপরতা চলছে।

আরও পড়ুন>>গত ২৪ ঘন্টায় করোানায় আরেক জনের মৃত্যু

সরেজমিনে দেখা যায়, উপজেলার বল্লা, বোধখানা মাঠে কমবেশি প্রায় ধানক্ষেতে এ ছত্রাকের আক্রমণ দেখা দিয়েছে। বল্লা গ্রামের চাষি আব্দুস সালাম জানান, তার ২৪ শতাংশ বোরোধানে এ ছত্রাক আক্রান্ত করেছে। তিনি কৃষি অধিদপ্তরের পরামর্শে  প্রয়োজনীয় ওষুধ প্রয়োগ করছেন। ফলে এখন অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে। মাঠ পর্যবেক্ষণে দেখা যায় ব্রি ৮১, ব্রি ২৮ ও ভারতীয় হাইব্রিড জাতের শুভলতা ধানে পাতাব্লাস্টের আক্রমণের হার অনেকটাই বেশি।

এ বিষেয়ে উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তা আইয়ুব হোসেন বলেন, অনুমোদিত হারে ছত্রাকনাশক ছিটালে এ ভাইরাসের আক্রমণ দূর হবে। সঠিক সময়ে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিলে ফলনের কোন সমস্য হবে বলে তিনি আশ্বস্ত করেন।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মাসুদ হোসেন পলাশ জানিয়েছেন, এটা ছত্রাকজনিত আক্রমণ। উচ্চতাপমাত্রা ও আর্দ্রতা বেশি হলে এটা দেখা দিতে পারে। তবে ছত্রাকনাশক প্রয়োগে এটা রোধ করা সম্ভব। তিনি আরো জানান, ঝিকরগাছাতে আক্রান্ত এখনও সহনীয় পর্যায়ে আছে। বিষয়টি নিয়ে কৃষি কর্মকর্তারা সচেতনতামূলক কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছেন বলে তিনি দাবি করেন।

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Leave a Reply

লেখক

সর্বশেষ সংবাদ

%d bloggers like this: