কিশোরগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধার রাইসমিল জবরদখলের সত্যতা মিলছে

মাফি মহিউদ্দিন, কিশোরগঞ্জ (নীলফামারী)।।

কিশোরগঞ্জে বীর মুুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমান হাবুলের রাইসমিল ও গোডাউন ঘর জবরদখলের প্রাথমিক সত্যতা পেয়েছেন তদন্ত কমিটি।

বুধবার দুপুরে তদন্ত কমিটির প্রধান উপজেলা খাদ্য কর্মকর্তা (অ:দ) তৌহিদুর রহমান সরেজমিনে হাবিব রাইসমিল ও চাতাল পরিদর্শন করেন।

এসময় তার সঙ্গে ছিলেন তদন্ত কমিটির সদস্য ওসিএলএসডি মহসিন আলী ও খাদ্য ইন্সপেক্টর তারিকুল ইসলাম। তদন্ত কমিটির প্রধান যুগান্তরকে জানান, ওই রাইচমিল, চাতাল ও গোডাউন ঘর মুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমান নির্মাণ করেছেন বলে প্রাথমিক ভাবে সত্যতা মিলেছে।

এছাড়া উভয় পক্ষের উপস্থিতিতে প্রমানিত হয়েছে, রাইচ মিলের যাবতীয় কাগজপত্র মুক্তিযোদ্ধার নামে রয়েছে। জানা যায়, উপজেলার নিতাই ইউনিয়নের পানিয়াল পুকুর মৌজায় ৬৮শতক জমির ওপর হাবিব রাইচ মিল এন্ড চাতাল রয়েছে। মুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমান হাবুল ২০১৬ সালে ওই রাইচমিল, চাতাল ও গোডাউন ঘর নির্মাণ করেন। কিন্তু একই মৌজার কাইয়ুম, ভুট্টু, বাবু, জিকরুল ও মাহাবুল ওই মিল-চাতাল জবরদখল করে মালিকানা দাবি করেন।

এঘটনায় মুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমান হাবুল জবর দখলের প্রতিকারের জন্য থানায় ও প্রতিপক্ষ আব্দুল কাইয়ুম মালিকানা নির্ধারণের জন্য জেলা খাদ্য কর্মকর্তার নিকট অভিযোগ করেন। খাদ্য বিভাগ তদন্তের উদ্যোগ নিলেও থানা প্রশাসন ব্যবস্থা না নেয়ায় মুক্তিযোদ্ধা হাবুল বিপাকে পড়েছেন।

- Advertisement -

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Leave a Reply

প্রতিবেদক

সর্বশেষ সংবাদ

Bengali Bengali English English German German Italian Italian
%d bloggers like this: