রোহিঙ্গা ইস্যুতে ত্রিপক্ষীয় বৈঠকে বসবে বাংলাদেশ, মিয়ানমার ও চীন

রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন ইস্যুতে ১৯ জানুয়ারি ঢাকায় পররাষ্ট্র সচিব পর্যায়ে ত্রিপক্ষীয় বৈঠকে বসবে বাংলাদেশ, মিয়ানমার ও চীন। রোহিঙ্গাদের পরিচয় যাচাই-বাছাইয়ে মিয়ানমারের দীর্ঘসূত্রতা তুলে ধরে আলোচনার বিষয়ে আশা প্রকাশ করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

বাংলাদেশ সীমান্তে রোহিঙ্গাদের ঢল নামে ২০১৭ সালের আগস্টে। নিজ দেশ মিয়ানমারে জাতিগত নিধন ও অমানবিক নির্যাতনের মুখে আশ্রয়ের প্রত্যাশায় ছুটে আসেন তারা।

ওই বছরের ২৩ নভেম্বর রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে বাংলাদেশ ও মিয়ানমারের মধ্যে প্রত্যাবাসন চুক্তি হয়। যাচাই-বাছাইয়ের জন্য মোট ছয় দফায় মিয়ানমারকে এ পর্যন্ত ৮ লাখ ৩০ হাজার রোহিঙ্গার তালিকা পাঠিয়েছে বাংলাদেশ। সম্প্রতি পাঠানো হয়েছে ২ লাখ ৩০ হাজার রোহিঙ্গার তালিকা।


আরও পড়ুন>>


রোহিঙ্গা ইস্যুতে বুধবার (১৩ জানুয়ারি) বিকেলে রাজধানীতে এক অনুষ্ঠানে পররাষ্ট্রমন্ত্রী পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আবদুল মোমেন জানান, নানা কারণে বারবার তারিখ পেছালেও চলতি মাসের ১৯ জানুয়ারি ঢাকায় বাংলাদেশ-মিয়ানমার-চীন ত্রিপক্ষীয় বৈঠক নিশ্চিত হয়েছে। এ পর্যন্ত ৪২ হাজার রোহিঙ্গার পরিচয় মিয়ানমার যাচাই-বাছাই করেছে।

প্রত্যাবাসন চুক্তি সইয়ের ৩ বছরের বেশি সময় পেরোলেও কোনো রোহিঙ্গাকে ফিরিয়ে নেয়নি মিয়ানমার।

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Leave a Reply

লেখক

সর্বশেষ সংবাদ

%d bloggers like this: