ষষ্ঠীর মধ্যে দিয়ে শুরু হয়েছে দুর্গাপূজা

- Advertisement -

হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের সর্ব বৃহৎ ধর্মীয় উৎসব শ্রী শ্রী দুর্গাপূজা আজ সোমবার (১১ অক্টোবর) ষষ্ঠীর মধ্যে দিয়ে আরাম্ভ হয়েছে।

সকালে কল্পারম্ভ এবং সন্ধ্যায় বোধন আমন্ত্রণ ও অধিবাসের মধ্যদিয়ে উৎসবের প্রথম দিনে শুরু হয়েছে ষষ্ঠী পূজা। তাই সকল মণ্ডপ এলাকায় সকাল থেকে চণ্ডীপাঠে মুখরিত।

বিল্ব বৃক্ষের তলায় বোধনের এর ঘট স্থাপনের মধ্যে দিয়ে পূজা শুরু করেন পুরোহিত গন। পূজার আনুষ্ঠানিকতা শেষ পুরোহিত চণ্ডীপাঠ করেন। এসময় পূজার সাথে সম্পৃক্ত ভক্ত বিন্দু পুরোহিতের চণ্ডীপাঠ শ্রবণ করেন।

এ সময় পুরোহিত শ্রী নারায়ণ চন্দ্র গোস্বামীর সাথে কথা হলে তিনি বলেন, আমি দীর্ঘ ৫০ বছর যাবত পূজা করছি। আজ সকাল থেকে শুরু হলো দূর্গাপূজার আনুষ্ঠানিকতা। গত বছর থেকে এবছর রাজবাড়ী জেলাতে দূর্গাপূজা ২১ টি মণ্ডপে বেশি হচ্ছে।

করোনা আতঙ্কের আবহেই এবার দেবীপক্ষের সূচনা হয়েছে। আর মহামারীর দুর্যোগ মাথায় নিয়েই এবার হচ্ছে মাতৃবন্দনা। ভক্তরা এ বছর পৃথিবীর সব মানুষকে করোনা মুক্ত রাখার জন্য এবার দেবীর কাছে প্রার্থনা জানাবেন। বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ সরকার নির্দেশিত স্বাস্থ্যবিধি মেনে দুর্গাপূজা পালনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

পাঁচ দিন দুর্গাপূজার আনুষ্ঠানিকতা শেষ আগামী (১৫ অক্টোবর) শুক্রবার বিজয়া দশমীতে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্যদিয়ে শেষ হবে।

পঞ্জিকা মতে, এবার দেবী দুর্গার আগমন হচ্ছে দোলায়। দোলায় চড়ে বাপের বাড়ির উদ্দেশ্যে স্বামীর ঘর থেকে রওনা দেবেন তিনি। তবে, মায়ের গমন এবার গজে। অর্থাৎ হাতিতে চড়ে মা বাপের ঘর ছেড়ে পাড়ি দেবেন স্বর্গে।

উল্লেখ্য, রাজবাড়ী জেলায় এবছর ৪২ টি ইউনিয়ন ও ৩ টি পৌরসভায় সর্বমোট ৪৪১ টি মণ্ডপে সামাজিক দুরত্ব ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে শারদীয় দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। গত বছর থেকে এবছর ২৪ টি মণ্ডপে বেশি পূজা হচ্ছে। জেলার বালিয়াকান্দি উপজেলাতে সব চেয়ে বেশি ১৪৮ টি মণ্ডপে পূজা হচ্ছে, সব চেয়ে কম গোয়ালন্দ উপজেলাতে ২১ টি মণ্ডপে পূজা চলছে।

এই বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

Leave a Reply

প্রতিবেদক

সর্বশেষ সংবাদ