Homeআন্তর্জাতিকক্রিপ্টোকারেন্সি নিয়ে রুশ উলামা কাউন্সিলের ফতোয়া

ক্রিপ্টোকারেন্সি নিয়ে রুশ উলামা কাউন্সিলের ফতোয়া

ডিজিটাল মুদ্রাব্যবস্থা ক্রিপ্টোকারেন্সি ব্যবহারে মুসলিমদের ক্ষেত্রে ধর্মীয় কোনো বাধা নেই বলে ঘোষণা দিয়েছে রাশিয়ার উলামা কাউন্সিল। সম্প্রতি এ বিষয়ক একটি ডিক্রি জারি করেছে কাউন্সিল।

শুক্রবার (২২ ডিসেম্বর) রাশিয়ার সরকারি বার্তা সংস্থা রিয়া নভোস্তিকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এ ঘোষণা দিয়েছেন রুশ উলামা কাউন্সিলের নেতা ও মস্কোর প্রধান মুফতি ইলদার আলাউদ্দিনভ।

জারি করা ডিক্রিতে মুফতি আলাউদ্দিনভ বলেন, ‘ইন্টারনেট প্রযুক্তির যেসব খাত জনগণের জীবনমানের উন্নয়নের সঙ্গে সরাসরি সম্পর্কিত, সেসব খাতকে কাউন্সিল সবসময়েই সমর্থন করে। এই নীতির আলোকে কাউন্সিল মনে করে, মুসলিমরা ক্রিপ্টোকারেন্সির ব্যবহার ও বিনিয়োগ করতে পারবে। এক্ষেত্রে ধর্মীয় কোনো বাধা নেই।’

সংবাদ সম্মেলনে মুফতি আলাউদ্দিনভ আরও বলেন, ‘জার্মানি, তুরস্ক, জর্ডান ও মিসরের উলামা, মুফতিদের সঙ্গে পরামর্শ সাপেক্ষে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।’

এদিকে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া ডিজিটাল মুদ্রা ক্রিপ্টোকারেন্সি হালাল না হারাম এ বিষয়ে বিতর্ক শুরু থেকেই। বিশ্বের মুফতিদের একাংশের মতে ডিজিটাল অর্থব্যবস্থার সঙ্গে ইসলামের কোনো বিরোধ নেই, আবার অন্য অংশ সন্দেহ পোষণ করে বলেন, এই অর্থব্যবস্থার সঙ্গে কোনো না কোনোভাবে জুয়ার সম্পর্ক রয়েছে।

বাংলাদেশ, কাতার, আফগানিস্তান,ভারত, ইরাক, তুরস্ক, বলিভিয়া, চীন, মরক্কো, মিশর, আলজেরিয়া, ভিয়েতনাম, নেপাল, ইকুয়েডর, ইন্দোনেশিয়া, নাইজেরিয়া, কলম্বিয়া, ঘানা, ইরান, উত্তর মেসিডোনিয়া, কসোভো, ফিনল্যান্ড, হাইতিসহ আরও অনেকগুলো দেশে এখনো নিষিদ্ধ ক্রিপ্টোকারেন্সি।

ক্রিপ্টোকারেন্সি হলো একটি ডিজিটাল মুদ্রা, যা এনক্রিপশন অ্যালগরিদম ব্যবহার করে তৈরি। এটি অর্থ প্রদানের একটি বিকল্প পদ্ধতি। ক্রিপ্টোকারেন্সি, ভার্চুয়াল কারেন্সি বা ডিজিটাল কারেন্সি নামেও পরিচিত।

সর্বশেষ খবর

Exit mobile version